পাইলটের ভুলেই বিধ্বস্ত হয় বিপিনের হেলিকপ্টার

পাইলটের ভুলের কারণেই বিধ্বস্ত হয় ভারতের প্রথম প্রতিরক্ষা প্রধান বিপিন রাওয়াতকে বহনকারী হেলিকপ্টার। ওই দুর্ঘটনা তদন্তে গঠন করা দলের প্রাথমিক প্রতিবেদনে এমন তথ্য উঠে এসেছে। 

গতকাল শুক্রবার (১৪ জানুয়ারি) প্রতিবেদনটি প্রকাশ করা হয়।

তদন্তকারী দলের রিপোর্ট অনুসারে, ‘উপত্যকার আবহাওয়ার অপ্রত্যাশিত পরিবর্তনের কারণে হেলিকপ্টারটি মেঘের মধ্যে প্রবেশ করে। আর এর ফলেই পাইলটের বিভ্রান্তি ঘটে ও হেলিকপ্টারটি ভেঙে পড়ে।’

হেলিকপ্টারের রেকর্ডার ও ককপিট ভয়েস রেকর্ডার বিশ্লেষণ করে এবং প্রত্যক্ষদর্শীদের জিজ্ঞাসাবাদের পরেই এই রিপোর্ট তৈরি করা হয়েছে বলেও তদন্তকারী দল জানিয়েছে।

সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে থাকাকালীন হঠাৎ কোনও বাধা এলেও পাইলটের অসাবধানতার কারণে হেলিকপ্টার ভেঙে পড়ে থাকতে পারে বলেও তারা জানিয়েছে।

গত ৮ ডিসেম্বর তামিলনাড়ুতে হেলিকপ্টারটি বিধ্বস্ত হয়। এতে বিপিন ও তার স্ত্রী মাধুলিকাসহ ১৩ জন প্রাণ হারান। তামিলনাড়ুর সুলুর বিমানঘাঁটি থেকে উড়েছিল হেলিকপ্টারটি। ৯৪ কিলোমিটার পাড়ি দেওয়ার পর সেটি বিধ্বস্ত হয়। হেলিকপ্টারটি ওয়েলিংটনে ডিফেন্স সার্ভিস স্টাফ কলেজে যাচ্ছিল। গ্রুপ ক্যাপ্টেন বরুণ সিংহ গুরুতর অগ্নিদগ্ধ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হলেও দুর্ঘটনার এক সপ্তাহ পরে তিনি মারা যান।

এর পরে এয়ার মার্শাল মানবেন্দ্র সিংহের নেতৃত্বে দুর্ঘটনার কারণ খতিয়ে দেখতে সেনা আদালতের তরফ থেকে একটি তদন্ত দল তৈরি করা হয়। সেই তদন্ত দলের রিপোর্টই গতকাল প্রকাশিত হয়েছে। 

তবে সেনা আদালতের তরফ থেকে দুর্ঘটনার কারণ হিসাবে যান্ত্রিক ব্যর্থতা, নাশকতা বা অবহেলার তত্ত্ব আগেই বাতিল করা হয়েছিল।

৬৩ বছর বয়সী সাবেক সেনাপ্রধান বিপিন রাওয়াত ২০১৯ সালের জানুয়ারিতে ভারতের প্রথম চিফ অব ডিফেন্স স্টাফের দায়িত্ব গ্রহণ করেন। দেশটির সেনা, নৌ ও বিমানবাহিনীকে সমন্বয় করার জন্য এ পদ সৃষ্টি করা হয়েছিল। প্রতিরক্ষামন্ত্রীর প্রধান সামরিক উপদেষ্টার ভূমিকাও পালন করছিলেন তিনি। পাশাপাশি দেশটির রাজনৈতিক নেতৃত্বের পরামর্শকের ভূমিকায় ছিলেন বিপিন রাওয়াত।

মন্তব্য করুন

Epaper

সাপ্তাহিক সাম্প্রতিক দেশকাল ই-পেপার পড়তে ক্লিক করুন

Logo

ঠিকানা: ১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

© 2022 Shampratik Deshkal All Rights Reserved. Design & Developed By Root Soft Bangladesh

// //